নেত্রকোণায় মা-মেয়ে হত্যাকারীদের শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

বিশেষ প্রতিনিধি: নেত্রকোণার আটপাড়া উপজেলার তেলিগাতী ইউনিয়নের পালগাঁও গ্রামের মৃত হেলাল উদ্দিনের স্ত্রী মোছাঃ মুক্তারের নেছা ও মেয়ে সুবর্ণা আক্তার হত্যাকারীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি এবং মামলার বাদী ও স্বাক্ষীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত সকল মিথ্যা ও বানোয়াট মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে নেত্রকোণায় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।
রবিবার সকাল ১১টা থেকে ১২টা পর্যন্ত নেত্রকোণা প্রেসক্লাবের সামনের সড়কে খুন হওয়া ক্ষতিগ্রস্থ অসহায় পরিবার ও এলাকাবাসী এই মানববন্ধনের আয়োজন করে। মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন, মৃত মোক্তারের নেছার ছেলে মোজাম্মেল হক, মেয়ে রেশমা আক্তার, ভাই তেলিগাতী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের প্রচার সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম ও বাবুল আলমসহ এলাকাবাসী।
মানববন্ধনে মৃত মোক্তারের নেছার ছেলে মোজাম্মেল হক বলেন, তেলিগাতী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এ টি এম শহিদুজ্জামান হেলিম এলাকায় একচ্ছত্র আধিপত্য বিস্তারের লক্ষ্যে তার অনুগত লোকজন নিয়ে বাহিনী গঠন করে এমন কোন অপকর্ম নেই যা তারা করে বেড়াচ্ছে না। কেউ তাদের অপকর্মের প্রতিবাদ করলে তাদের উপর নেমে আসে অত্যাচার নির্যাতন। এরই ধারাবাহিকতায় হেলিম বাহিনী আমার মা মোক্তারের নেছা ও বোন সুবর্ণা আক্তারকে হত্যা করে। হেলিমসহ তার লোকজনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করায় তারা ক্ষিপ্ত হয়ে মামলা তুলে নেয়ার জন্য মামলার আসামীরা আমার পরিবার ও স্বাক্ষীদের বিরুদ্ধে একের পর এক ৭টি মিথ্যা মামলা দায়ের করে হয়রানী এবং অব্যাহত প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে আসছে। প্রাণ ভয়ে আমি সহ আমার পরিবারের লোকজন বর্তমানে বাড়ীঘর ছেড়ে অন্যত্র পালিয়ে বেড়াচ্ছি।
মৃতের ভাই জাহাঙ্গীর আলম কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, হেলিম বাহিনী আমার বোন ও ভাগ্নিকে হত্যা করেই কান্ত হয়নি। তারা আমার প্রতিবন্ধী মেয়েকে ধর্ষণ করেছে। আমি প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে হেলিম বাহিনীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবী জানাচ্ছি।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।