কেন্দুয়ায় ৩ জনপ্রতিনিধিসহ ৯ জুয়ারীকে গ্রেপ্তার 

স্টাফ রিপোর্টার: নেত্রকোণার কেন্দুয়ায় ৩ জনপ্রতিনিধিসহ ৯ জুয়ারীকে গ্রেপ্তার করেছে কেন্দুয়া থানা পুলিশ।
বৃহস্পতিবার (৪ জুন) রাত সাড়ে ৮টার দিকে পৌর শহরের সাউদপাড়া মহল্লার জৈনক এনামূল হকের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলা অবস্থায় গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এই অভিযানে নেতৃত্ব দেন কেন্দুয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান।
গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- কেন্দুয়া পৌরসভার সাউদপাড়া মহল্লার বাসিন্দা ও ৫নং ওয়ার্ডের কমিশনার আনিসুর রহমান রতন (৪৫), চন্দ্রগাতি মহল্লার বাসিন্দা ও ৯নং ওয়ার্ডের কমিশনার আব্দুল কাইয়ুম (৪০), সাউদপাড়া মহল্লার মোতালেব তালুকদারের ছেলে হায়দার আলী (৩৯),আরামবাগ মহল্লার আব্দুর রউফের ছেলে জুয়েল মিয়া (৪১),কান্দিউড়া ইউপির দিগলকুশা গ্রামের ইউপি সদস্য আবু হারেছ (৪২),ছিলিমপুর গ্রামের আবু তাহেরের ছেলে মস্তোফা (৩৯), সাজিউড়া গ্রামের মোসলেম উদ্দিনের ছেলে রতন মিয়া (৩৬),মাসকা ইউপির পিজাহাতি গ্রামের জাহাঙ্গীর হোসেনের ছেলে রেজাউল হাসান সুমন (৪০) ও পাশ্ববর্তী কিশোরগঞ্জের তাড়াইল উপজেলার বিল্লাল হোসেন (৩৫)। এসময় জুয়ার আসর থেকে ১ লাখ ৫৩ হাজার ১৮৭ টাকা ও ৬ (বান্ডি) প্যাকেট তাস জব্দ করে পুলিশ। এ ঘটনায় কেন্দুয়া থানা এসআই হাফিজুর রহমান বাদী হয়ে গ্রেপ্তারকৃতদের বিরুদ্ধে জুয়া আইনে মামলা দায়ের করেন।
মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে কেন্দুয়া থানার ওসি মোহাম্মদ রাশেদুজ্জামান বলেন, গ্রেপ্তারকৃতরা আন্তঃজুয়ারী চক্র। তাদের নেটওয়ার্ক অনেক বড়। তারা বিভিন্ন
সময়ে বিভিন্ন স্পটে জুয়ার আসর বসায় এবং খেলে। বিভিন্ন জেলার জুয়ারীদের খবর দিয়ে আনে তারা। এই চক্রেটিকে ধরার জন্যে বহুদিন ধরে চেষ্টা করে আসছিলেন বলে জানান ওসি।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।