প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ১২ হাজার ৫ শত টাকা দিলেন বালু ঘাটের এক শ্রমিক

দুর্গাপুর প্রতিনিধি: করোনা মহামারীতে মানুষের খাদ্য সংকটের কথা মাথায় রেখে দুর্গাপুর উপজেলার সদর ইউনিয়নের বালু ঘাটের শ্রমিক মো. নজরুল ইসলাম ১২হাজার ৫শত টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রান তহবিলে জমা দিয়ে মানবিকতার এক ভিন্নরকম দৃষ্টান্ত তৈরি করলেন। বুধবার দুপুরে নজরুল ইসলাম নামের ওই শ্রমিক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে ১২হাজার ৫শত টাকা প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে দান করেন।

দুর্গাপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফারজানা খানম জানান, নজরুল ইসলাম উপজেলার সদর ইউনিয়নের দেবথৈল গ্রামের আব্দুল খালেক এর ছেলে। দেবথৈল এলকার বালু ঘাটে শ্রমিক এর কাজ করতেন তিনি। সে দীর্ঘদিন ধরে ঘর বানানোর জন্য তার মা নুরহাজান বেগমের কাছে টাকা জমানো শুরু করেন। ইতোমধ্যে ওই টাকা জমা হয়েছে ১২হাজার ৫শত। দেশে করোনা পরিস্থিতিতে ঘর না বানিয়ে তিনি সমুদয় টাকা বুধবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে দেয়ার জন্য আমার কাছে জমা দেন। এই ঘটনাটি মানবতার এক বিরল দৃষ্টান্ত। এ সময় অন্যদের মধ্যে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. সাইফুল ইসলাম, সমাজসেবা কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম, প্রেসক্লাব সাধারণ সম্পাদক তোবারক হোসেন খোকন, সাংবাদিক ধনেশ পত্রনবীশ, যুবলীগ নেতা আশিষ রায় উপস্থিত ছিলেন।

নজরুল ইসলাম জানান, বালু ঘাটে শ্রমীক হিসেবে করে কিছু টাকা জমিয়েছি ঘর করার জন্য। কিন্তু করোনায় মানুষ না খেয়ে কষ্ট করছে। আমার ঘর বানানোর চেয়ে মানুষের জীবন বড়, বেঁচে থাকলে ঘর বানাতে পারবো। সেই কারণে আমি প্রধানমন্ত্রীর কাছে ইউএনও এর মাধ্যমে আমার জমানো ১২হাজার ৫শত টাকা প্রদান করলাম।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।