করোনার লক্ষণ নিয়ে মোহনগঞ্জ হাসপাতালের সামনে এক জনের মৃত্যু

স্টাফ রির্পোটার: নেত্রকোণার মোহনগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে করোনা লক্ষণ নিয়ে শনিবার বিকেলে এক রোগির মৃত্যু হয়েছে। এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত (শনিবার সন্ধা সাড়ে ছয়টার দিকে) নিহতের লাশ হাসপাতালের সামনেই পড়ে রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা।
স্থানীয়রা জানায়, কয়েক দিন আগে নরোত্তম সরকার ঢাকায় তার ছেলের বাসা থেকে গ্রামের বাড়িতে আসেন। শুক্রবার মোহনগঞ্জ পৌরশহরের রাউতপাড়ায় তার ভাগ্নের বাসা অবস্থান করেন। কদিন ধরেই তিনি সর্দি জ্বরে ভুগছিলেন। নরোত্তম সরকারের (৫৫) বাড়ি মোহনগঞ্জ উপজেলার মাঘান ইউনিয়নের মল্লিকপুর গ্রামে। শনিবার করোনার লক্ষণ নিয়ে তার ভাগ্নে বৌ মিতু রানী তাকে শনিবার মোহনগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গেলে কর্মরত চিকিৎসক তাকে ময়মনসিংহ রেফার্ট করে। এসময় করোনা সন্দেহে তার স্বজনরা ওই ব্যক্তিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে রেখে পালিয়ে যায়।
মোহনগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ সুবীর সরকার জানান, রোগীর অবস্থা খারাপ দেখে তাকে ময়মনসিংহ নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। পরে বিকালে হাসপাতালের সামনেই তিনি মারা যান। তার শরীরে করোনার উপসর্গ আছে কিনা তার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। নিহতের লাশ হাসপাতালেই রয়েছে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।