খালিয়াজুরীতে অজ্ঞাত রোগে মরছে গরু ছাগল কুকুর বিড়াল : বাড়ছে আতংক

স্টাফ রির্পোটার: নেত্রকোণা জেলার খালিয়াজুরী উপজেলায় অজ্ঞাত রোগে কুকুর বিড়াল ও গরু মরছে। গত চব্বিশ ঘণ্টায় অন্তত বিশটি কুকুর, ছয়টি গরু, ছাগল ও বিড়াল মরার খবর পাওয়া গেছে।
গত দুই দিনে খালিয়াজুরী উপজেলা সদর, লক্ষীপুর, কাদিরপুর, আয়াতপুর, রসূলপুরসহ প্রভৃতি স্থানে গৃহপালিত পশুসহ প্রায় ৩০-৪০ টি বিশটি কুকুর, ছয়টি গরু, ছাগল ও বিড়াল মারা গেছে।
এলাকাবাসী প্রথমে বিষয়টিকে স্বাভাবিক মৃত্যু বলে ধরে নিলেও একাধিক প্রাণী দ্রুত মরে যাওয়ায় বিষয়টিকে অজ্ঞাত রোগ হিসেবে দেখেছেন তারা।
খালিয়াজুরী গ্রামের মোঃ এনামুল হক নয়ন বলেন, বেশ কিছু দিন ধরে গরু-বাছুরের শরীরে এক ধরনের চর্মরোগে গরু-বাছুর মারা যাচ্ছে, ওই মৃত গরুর মাংস খেয়েও কুকুর গুলো মরতে পারে।
খালিয়াজুরী সদর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও জেলা পরিষদ সদস্য গোলাম আবু ইছহাক জানান, এই চার পাঁচ দিনে প্রায় ২০ থেকে ২৫ টি কুকুর অজানা রোগে মারা গেছে। ফলে এলাকায় দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়ছে। স্ব উদ্যোগী হয়ে এলাকার কিছু যুবকদের সাথে নিয়ে কিছু মৃত কুকুরকে মাটি চাপা দিয়েছি।


করোনা ভাইরাস আতঙ্কের পাশাপাশি এই বিষয়টি নিয়ে তারা আরও বেশি আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। এঘটনার খবর পেয়ে সরজমিনে পরিদর্শনের পরেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন খালিয়াজুরী উপজেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডাঃ জাহাঙ্গীর আলম।
এ ব্যাপারে উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ ফয়জুর রহমানের যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমি এ ঘটনাটি প্রথম শুনলাম। এটি কোন ভাইরাসের আক্রমণে হয়ে থাকতে পারে। বিষয়টি আমরা সরেজমিনে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেব।
খালিয়াজুরী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এএইচএম আরিফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, এবিষয়ে জেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তাকে জানানো হয়েছে। কি কারণে পশুগুলো মরছে তা দ্রুত বিষয়টি পরীক্ষা নিরিক্ষা করে জানানোর জন্য বলা হয়েছে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।