কেন্দুয়ায় বিয়ে বাড়িতে বরপক্ষের উপর কনেপক্ষের হামলা: আহত ১০

কেন্দুয়া প্রতিনিধি: বরপক্ষের লোকজনকে যথাযথ সম্মান না করার ঘটনাকে কেন্দ্র করে নেত্রকোণার কেন্দুয়া উপজেলায় বিয়ে বাড়িতে বরযাত্রীদের উপর হামলা করেছে কনেপক্ষের লোকজন। এতে বরের ভগ্নিপতিসহ অন্তত ১০ জন বরযাত্রী আহত হয়েছেন।
শুক্রবার (১৩ জুন) সন্ধার দিকে উপজেলার কান্দিউড়া ইউনিয়নের বেজগাতী গ্রামে কনের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে বরযাত্রী লিটন মিয়া (৩২), খেলন মিয়া (৩৫), রুবেল মিয়া (২৮), সোহাগ মিয়া (১৭) ও সোহেল মিয়া (২৫) কে কেন্দুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে এবং বরের ভগ্নিপতি আহত ইনচান মিয়াসহ অন্য আহতরা স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।
জানা গেছে, শুক্রবার বেজগাতী গ্রামের রুক্কুল মিয়ার মেয়ে দিশা আক্তারের সাথে একই উপজেলার মোজাফরপুর ইউনিয়নের চারিতলা গ্রামের মৃত আব্দুল হাফিজের ছেলে রমজান মিয়ার বিয়ের আয়োজন করা হয়। পূর্ব নির্ধারিত সময় অনুয়াযী বর রমজান মিয়া ৭০/৮০ জন বরযাত্রী নিয়ে জুম্মার নামাজের পরপরই কনের বাড়িতে গিয়ে হাজির হয়। এ সময় কনেপক্ষের লোকজন বরযাত্রীদের যথাযথ সম্মান না করায় বরের ভগ্নিপতি ইনচান মিয়া কনেপক্ষের লোকজনের কাছে অভিযোগ করেন। এ নিয়ে দুইপক্ষের লোকজনের মধ্যে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে বরযাত্রীদের উপর কনেপক্ষের লোকজন হামলা চালায়। এতে বরের ভগ্নিপতি ইনচান মিয়াসহ অন্তত ১০ জন বরযাত্রী আহত হন।
এ বিষয়ে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শহীদুল্লাহ কায়সারের সাথে কথা হলে তিনি সাংবাদিকদের জানান, কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে বর ও কনেপক্ষের লোকজনের মধ্যে হাতাহাতি হয়েছে। তবে বিষয়টি মিটমাট করে বিয়ে সম্পন্ন করার ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে তিনি জানান।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।